বিশ্বের শীর্ষ ১০ ধনী ক্রিকেটার

ক্রিকেট  সারা  বিশ্বে একটি  খুবই  জনপ্রিয় খেলা। এটি একটি   ব্যবসা এবং বিনোদনের  উৎস।  সারা বিশ্বে বিভিন্ন পর্যায়ের বিভিন্ন স্তরে বিভিন্ন টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠানিত হচ্ছে। সেখানে জাতীয়, আন্তর্জাতিক এবং জোনল স্তরের খেলোয়াড় নিযুক্ত। খেলাটি আরও পেশাদার হয়ে উঠেছে খেলোয়াড়রা খেলার জন্য প্রচুর অর্থ পাওয়ার জন্য। প্রতিটি খেলার মধ্যে অনেক অর্থ জড়িত থাকে। আজ আমরা জানবো শীর্ষ ধনী ১০ জন ক্রিকেট খেলোয়ার সম্পর্কে।

শীর্ষ ধনী ক্রিকেটদের মধ্যে যার নাম প্রথমে আসে সে হলো সাবেক ভারতের জাতীয় দলের অধিনায়ক এম এস ধোনি। সে ক্যাপ্টেন কুল নামেও পরিচিত। তিনি ভারতীয় সেরা উইকেট কিপারদের মধ্যে একজন। ধোনি তরুণ প্রজন্মের যারা ক্রিকেটার হতে চায় তাদের রুল মডেল। তার  মধ্যে ক্রিকেটের বিভিন্ন ইউনিক কৌশল আছে। তিনি তার হেলিকপ্টার শট জন্য বিশ্ব বিখ্যাত। ক্যাপ্টেন কুল বিশ্বের সবচেয়ে ধনী ক্রিকেটারের মধ্যে শীর্ষে, যার মোট সম্পদের পরিমান ১১৫ মিলিয়ন ডলার মূল্যের।

তালিকায় ২য় নম্বারে আছে ভারতের বর্তমান ক্রিকেট দলের অধিনায়ক ভিরাট কোহলি। কোহলির ভারতে এবং ভারতের বাইরে বিশাল ফ্যান বেস আছে। তিনি দলের সবচেয়ে স্টাইলিশ এবং ফান লাভিং প্লেয়ার। কোহলি ভারতের জাতীয় ক্রিকেটে ফিটনেসে নতুন প্রবণতা নিয়ে আসে। তার মোট সম্পদের মূল্য ৮০ মিলিয়ন ডলার।

তালিকায় ৩য় নাম্বারে আছে আরেক ভারতীয় ক্রিকেটার যুবরাজ সিং। তিনি বিশ্বের সবচেয়ে চমৎকার খেলোয়াড়দের মধ্যে একজন। তিনি একজন আগ্রাসী খেলোয়াড় এবং তাঁর স্প্রিন্ট তাকে বিভিন্ন খেলা থেকে অনেক টাকা উপার্জন সাহায্য করেছে। বর্তমানে তার মোট সম্পদের পরিমান ৪৪ মিলিয়ন ডলার।

তালিকায় চতুর্থ জনও একজন ভারতীয়। আর সে হলো বীরেন্দ্র শেওয়াগ। বিশ্ব ক্রিকেটে বিশেষ করে ভারতে বীরেন্দ্র শেওয়াগ একটি বড় নাম। ১৯৭৮ সালের ২০শে অক্টোবর এই বিস্ময়কর প্রতিভাধর খেলোয়াড় জন্মগ্রহণ করেন। শেওয়াগ একজন আক্রমণাত্মক এবং দক্ষ প্লেয়ার। তিনি তার সম্ভাব্য খেলাটি সম্পূর্ণরূপে প্রভাবিত করে পরিবর্তন করতে সক্ষম। তিনি একজন অভিজ্ঞতা সম্পূর্ণ সিনিয়র খেলোয়াড়। সময়ের সাথে সাথে, তার খেলা প্রতিটা প্রতিযোগিতায় আরও উন্নত হয়েছে। তিনি ভারতীয় দলের সবচেয়ে প্রতিভাবান এবং দক্ষ খেলোয়াড়দের মধ্যে একজন। তার মোট সম্পদের পরিমান ৩৮ মিলিয়ন ডলার।

বিশ্ব বিখ্যাত  অস্টেলিয়ান  খেলোয়াড়  শেন ওয়াটসন আছেন তালিকার পাঁচ নাম্বারে। তিনি ১৭ই জুন ১৯৮১ সালে অস্ট্রেলিয়ার কুইন্সল্যান্ডে জন্মগ্রহন করেন। তিনি একজন অলরাউন্ডার। তিনি এমন একজন বিশ্বব্যাপী প্রশংসিত প্লেয়ার যিনি দীর্ঘ সময় শীর্ষ পারফরমেন্স প্রদান করে আছসে। তিনি একজন আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন খেলোয়াড় এবং তার চমৎকার গেমিং পারফরম্যান্সের জন্য বিশ্বের মধ্যে ভালভাবে স্বীকৃত। তার সম্পদের পরিমান প্রায় ৩৬ মিলিয়ন ডলার।

তালিকায় ষষ্ঠ নম্বারে আছে পাকিস্তানের খেলোয়ার শহিদ আফ্রিদি। আফ্রিদিকে বিশ্বের সবচেয়ে বিপজ্জনক ব্যাটসম্যানদের মধ্যে একজন বিবেচনা করা হয়। তিনি সর্বকালের সেরা খেলোয়াড়দের মধ্যে একজন। বড় বড় শট খেলার জন্য তিনি বুমবুম আফ্রিদি নামেও পরিচিত। তার সম্পদের পরিমান প্রায় ৩৫ মিলিয়ন ডলার।

তালিকায় ৭ম নাম্বারে আছে সাবেক ভারতীয় ওপেনিং ব্যাটসম্যান গৌতম গম্ভীর। তিনি ১৯৮১ সালের ১৪ই অক্টোবর ভারতের নিউ দিল্লিতে জন্মগ্রহন করেন। তিনি তাঁর শান্ত প্রকৃতির জন্য বিখ্যাত। তিনি ভারতীয় ক্রিকেটে অনেক অবদান রেখেছেন। তিনি একজন মার্জিত এবং তীক্ষ্ন প্লেয়ার। তার মোট সম্পদের পরিমান ২৮ মিলিয়ন।

তালিকায় ৮ নাম্বারে আছে সাবেক অস্ট্রেলিয়ান ক্রিকেটার মাইকেল জন ক্লার্ক। তিনি ১৯৮১ সালের ২ই এপ্রিল আস্টেলিয়ার লিভারপুলে জন্মগ্রহন করেন। তিনি বিশ্বের সবচেয়ে উজ্জ্বল ও বুদ্ধিমান খেলোয়াড়দের মধ্যে একজন। ক্রিকেট ছাড়াও, তার ভাল চেহারা তার জন্য বিভিন্ন মডেলিং এর সুযোগ করে দিয়েছে। তিনি বিশ্বের তীক্ষ্ণ এবং ডেডিকেটেড ক্রিকেটারদের মধ্যে একজন। তার বর্তমান সম্পদের পরিমান ১৮ মিলিয়ন।

টি-টুয়েন্টির দানব ক্রিস গেইল আছে তালিকার ৯ম নাম্বারে। ক্রিস গেইল খুব ঠাণ্ডা এবং একজন খুব চিন্তাশীল প্লেয়ার। তাকে রানে মেশিনও বলা হয়। তাকে বেশিরভাগই সবাই বড় বড় শট খেলতে দেখেন। তিনি ভারতীয় প্রিমিয়ার লীগেও খেলে থাকেন, ২০১৮ আইপিএলে তিনি খেলছেন কিংস এলিভেন পাঞ্জাবের হয়ে। ওয়েস্ট ইন্ডিজের এই ফান লাভিং এবং শক্তিশালী খেলোয়াড় বিশ্বের সেরা ধনী খেলোয়াড়দের মধ্যে একজন। তার মোট সম্পদের পরিমান ১৮ মিলিয়ন ডলার।

তালিকায় ১০ নাম্বারে আছেন আরেক দানবীয় ব্যাটসম্যান এবি ডি ভিলিয়ার্স। এবি ডি ভিলিয়ার্স বর্তমানে বিশ্বের সেরা ফিটনেস খেলোয়াড়দের একজন। তিনি দক্ষিণ আফ্রিকান দলের একজন খেলোয়াড়। তিনি  চমৎকার স্ট্রাইকে ব্যাট করেন এবং তাকে খেলা পরিবর্তনকারী হিসাবে গণ্য করা হয়। এখনও তিনি তার  ক্রিকেট ক্যারিয়ারের প্রাথমিক দিকে আছেন এবং বিশ্বের ধনী ক্রিকেটারদের তালিকাতে প্রবেশ করতে সক্ষম হয়েছেন। তার মোট সম্পদের পরিমান ১৬ মিলিয়ন ডলার।