ঘরের মাঠে ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোর গোলে হার এড়াল রিয়াল মাদ্রিদ।

ঘরে মাঠে অ্যাথলেটিক বিলবাও বিপক্ষে প্রায় পুরো মাচে পিছিয়ে থেকে ৮৭ মিনিটে ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর গোলে ১-১ সমতা নিয়ে মাঠ ছাড়ে রিয়াল মাদ্রিদ।

লা-লিগায় বুধবার রাতের ম্যাচে  বেল ছাড়া দলের সকল তারকা প্লেয়ার ছিল রিয়াল মাদ্রিদের। তার পরেও তারা জয় তুলে নিতে পারে নি। ১-১ ড্র নিয়ে সন্তুষ্ট থাকতে হয় অল সাদাদের। ম্যাচের ১৪ মিনিটে গোল খেয়ে যায় রিয়াল মাদ্রিদ। ইনগো কর্ডোবার পাস থেকে গোল দিয়ে অ্যাথলেটিক বিলবাওকে লিড এনে দেয় ইনকি উইলিয়ামস। অ্যাথলেটিক বিলবাও এগিয়ে যায় ১-০ গোলে। আক্রমন এর পর আক্রমন করেও কোন গোল দিতে পারছিলো না রিয়াল মাদ্রিদের খেলোয়ারা। শেষ পর্যন্ত ৮৭ মিনিটে ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর গোলে রক্ষা পায় রিয়াল মাদ্রিদ।

অ্যাথলেটিক বিলবাও গোলে এগিয়ে থাকলেও পুরো ম্যাচে আধিপত্য ছিল রিয়াল মদ্রিদেরই।  পুরো ম্যাচে ৬৬% বল নিজেদের দখলে রাখে জিদান শিষ্যরা। যেখানে রিয়াল মদ্রিদ গোল মুখে শট নিয়ে ১০ টি সেখানে বিলবাও নিয়েছে মাত্র ২ টি। রিয়াল ১৬টি কর্নার আদায় করে নিলেও অ্যাথলেটিক বিলবাও মাত্র দুইটি কর্নার আদায় করে নিতে সক্ষম হয়। এই থেকেই বোঝা যায় রিয়াল ম্যাচে কতটা আধিপত্য নিয়ে খেলেছে।

রোনালদোর শট বাড়ে না লাগলে ম্যাচের ৯ মিনিটেই এগিয়ে যেত পারত রিয়াল মাদ্রিদ। খেলার ১৩ মিনিটে আবারও গোল সুযোগ পায় রোনালদো। কিন্তু এবারও গোল মিস করেন পর্তুগিজ  এই সেনা। এর এক মিনিট পর ১৪তম মিনিটে পাল্টা-আক্রমণে ০-১ গোলের লিড নেয় অ্যাথলেটিক বিলবাও। এই মোসমে ইনাকি উইলিয়ামস লা-লিগায় তার সাত নাম্বার গোলটি করে দলকে এগিয়ে দেয়। এর পর রিয়াল মাদ্রিদও গোল মুখে কয়েটি শট নেয়, কিন্তু কোন গোল আদায় করে কাজের কাজ কিছুই হচ্ছিল না। ম্যাচের ১৬ মিনিটে ফ্রি-কিক থেকে সার্জিও রামোস হেড  নেয় কিন্তু  গোলরক্ষক কোপা অরিজিবলগা এটিকে সান্ত্বভাবে এটি রুখে দেয়। এর তিন মিনিট পর মারসেলোর ডি-বক্স এর বাইরে থেকে জোরালো কিক কোপা রুখে দেয়। শুধু এটি নয় পুরু ম্যাচে কোপা পারফর্মেন্সর কারনে ধন্যবাদ পেতেই পারে।

দ্বিতীয়ার্ধে এসে গোলের মোহে মনোযোগ হারিয়ে ফেলেন রিয়াল মদ্রিদের খেলোয়ার রা। তাদের রক্ষনভাগেও চির দেখা দেয়। আবশ্য অ্যাথলেটিক বিলবাও খেলোয়ারও গোল দিয়ে কোন সুযোগ কাজে লাগাতে পারে নি।  ম্যাচের ৬৪তম মিনিটে গোল দেয়ার ভালো সুযোগ পায় বিলবাও। তিন তিন বার শট দিয়েও সেই সুযোগ কাজে লাগাতে পারে নি অ্যাথলেটিক বিলবাও খেলোয়াররা। ম্যাচ শেষ দিকে যখন মনে হচ্ছে রিয়াল মনে হচ্ছে হেরে যাবে, তখনই রিয়ালের ত্রাতা হিসাবে আসেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। ম্যাচের ৮৭ মিনিটে অসাধারন এক গোলের মাধ্যমে সমতা ফেরান পর্তুগিজ  এই সেনা। লুকা মড্রিকের জরালো শত ক্রাব করে গোলে মুখে ডুকান রোনালদো।

রিয়াল মাদ্রিদ লালিগা ট্রপি থেকে অনেক ধুরে চলে গিয়েছে। শীর্ষ থাকা বার্সেলোনা থেকে ১৬ পয়েন্ট ব্যাবধানে টেবিলে ৩ নাম্বারে আবস্থান করছে। তাদের এখন লড়তে হবে পয়েন্ট টেবিলে চারে থেকে চ্যাম্পিয়ান লীগ খেলা নিশ্চিত করা।

SHARE